Home    Source

 
 Home
 Subject Index
 Bukhari Shareef
 Muslim Shareef
 Abu Dawud
 Malik Muwatta
Google
See Arabic as Image 
79) সূরা আন-নযিআ’ত (মক্কায় অবতীর্ণ), আয়াত সংখ্যা 46
 بِسْمِ اللّهِ الرَّحْمـَنِ الرَّحِيمِ
 শুরু করছি আল্লাহর নামে যিনি পরম করুণাময়, অতি দয়ালু।
  Ayahs:   | 1-15 | 16-30 | 31-45 | 46-46 |
 
  أَخْرَجَ مِنْهَا مَاءهَا وَمَرْعَاهَا  (31
তিনি এর মধ্য থেকে এর পানি ও ঘাম নির্গত করেছেন,  
He draweth out therefrom its moisture and its pasture;  
 
  وَالْجِبَالَ أَرْسَاهَا  (32
পর্বতকে তিনি দৃঢ়ভাবে প্রতিষ্ঠিত করেছেন,  
And the mountains hath He firmly fixed;-  
 
  مَتَاعًا لَّكُمْ وَلِأَنْعَامِكُمْ  (33
তোমাদের ও তোমাদের চতুস্পদ জন্তুদের উপকারার্থে।  
For use and convenience to you and your cattle.  
 
  فَإِذَا جَاءتِ الطَّامَّةُ الْكُبْرَى  (34
অতঃপর যখন মহাসংকট এসে যাবে।  
Therefore, when there comes the great, overwhelming (Event),-  
 
  يَوْمَ يَتَذَكَّرُ الْإِنسَانُ مَا سَعَى  (35
অর্থাৎ যেদিন মানুষ তার কৃতকর্ম স্মরণ করবে  
The Day when man shall remember (all) that he strove for,  
 
  وَبُرِّزَتِ الْجَحِيمُ لِمَن يَرَى  (36
এবং দর্শকদের জন্যে জাহান্নাম প্রকাশ করা হবে,  
And Hell-Fire shall be placed in full view for (all) to see,-  
 
  فَأَمَّا مَن طَغَى  (37
তখন যে ব্যক্তি সীমালংঘন করেছে;  
Then, for such as had transgressed all bounds,  
 
  وَآثَرَ الْحَيَاةَ الدُّنْيَا  (38
এবং পার্থিব জীবনকে অগ্রাধিকার দিয়েছে,  
And had preferred the life of this world,  
 
  فَإِنَّ الْجَحِيمَ هِيَ الْمَأْوَى  (39
তার ঠিকানা হবে জাহান্নাম।  
The Abode will be Hell-Fire;  
 
  وَأَمَّا مَنْ خَافَ مَقَامَ رَبِّهِ وَنَهَى النَّفْسَ عَنِ الْهَوَى  (40
পক্ষান্তরে যে ব্যক্তি তার পালনকর্তার সামনে দন্ডায়মান হওয়াকে ভয় করেছে এবং খেয়াল-খুশী থেকে নিজেকে নিবৃত্ত রেখেছে,  
And for such as had entertained the fear of standing before their Lord's (tribunal) and had restrained (their) soul from lower desires,  
 
  فَإِنَّ الْجَنَّةَ هِيَ الْمَأْوَى  (41
তার ঠিকানা হবে জান্নাত।  
Their abode will be the Garden.  
 
  يَسْأَلُونَكَ عَنِ السَّاعَةِ أَيَّانَ مُرْسَاهَا  (42
তারা আপনাকে জিজ্ঞাসা করে, কেয়ামত কখন হবে?  
They ask thee about the Hour,-'When will be its appointed time?  
 
  فِيمَ أَنتَ مِن ذِكْرَاهَا  (43
এর বর্ণনার সাথে আপনার কি সম্পর্ক ?  
Wherein art thou (concerned) with the declaration thereof?  
 
  إِلَى رَبِّكَ مُنتَهَاهَا  (44
এর চরম জ্ঞান আপনার পালনকর্তার কাছে।  
With thy Lord in the Limit fixed therefor.  
 
  إِنَّمَا أَنتَ مُنذِرُ مَن يَخْشَاهَا  (45
যে একে ভয় করে, আপনি তো কেবল তাকেই সতর্ক করবেন।  
Thou art but a Warner for such as fear it.  
 
  Ayahs:   | 1-15 | 16-30 | 31-45 | 46-46 |